১ জানুয়ারি ২০২৪


ওসমানীনগরে হামলার শিকার মোকাব্বির খান এমপি

শেয়ার করুন

ওসমানীনগর প্রতিনিধি:  সিলেট ২ আসনের উদীয়মান সূর্য মার্কার প্রার্থী ও বর্তমান সংসদ সদস্য মোকাব্বির খান ওসমানীনগরে গিয়ে হামলার শিকার হয়েছেন।

এই বিষয়ে জানতে চাইলে এমপি মোকাব্বির খান অভিযোগ করে আজকের সিলেটকে জানান সোমবার সন্ধ্যায় মাগরিবের নামাজের পর নির্বাচনী গণসংযোগ সম্পন্ন করার পর ফিরতি পথে সিলেটের ওসমানীনগর উপজেলার তাজপুর ইউনিয়নের চরইসবপুর গ্রামে সম্পূর্ণ পরিকল্পিতভাবে তার উপরে হামলা করা হয়েছে।

তিনি বলেন, উপজেলার মান্দারুকা গ্রাম থেকে তাজপুর বাজারে ফেরার পথে চরইসুবপুর নামক স্থানে নৌকা মার্কার মাইকিং করা একটি সিএনজি অটোরিক্শা থেকে কয়েকজন যুবক তার গতিরোধ করে। এ সময় মোকাব্বির খানের গাড়িতে থাকা দয়ামীর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান নুনু মিয়া প্রতিবাদ করলে সিএনজিতে থাকা যুবকেরা সরাসরি মোকাব্বির খানের গাড়িতে কয়েকবার আঘাত করে এবং উনার গাড়ির বেশকিছু অংশ ডেমেজ করে দেয়।

তারপর সিএনজিতে থাকা মাইকে তারা প্রচার করতে থাকে গণফোরামের এমপি সন্ত্রাসী মোকাব্বির খান তাদের উপর হামলা চালিয়েছেন, যে যেখানে থাকেন সাথে সাথে যেন উক্ত স্থানে চলে আসেন। অন্ধকার নামার কারণে তিনি ও তার সাথে থাকা লোকজন দ্রুত স্থান ত্যাগ করে মঙ্গলচন্ডী বাজার নামক এলাকায় চলে যান।

সেখান থেকে ওসমানীনগর থানার ওসি এবং সার্কেল এসপিকে মোকাব্বির খান হামলার ঘটনা অবগত করলে পুলিশের একটি টহল দল উক্ত ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়।

বিষয়টি ভুল বুঝাবুঝি বলে তারা মীমাংসা করতে চায় কিন্তু মোকাব্বির খান কোন ধরনের সমঝোতা না করে এর প্রতিবাদ করেন।

আজকের সিলেট ডটককে মোকাব্বির খান বলেন, নির্বাচন সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হওয়ার কোন ধরনের সম্ভাবনাই তিনি দেখছেন না। আওয়ামী লীগ জোর করে বিজয়ী হতে চাইছে।

নির্বাচন যদি সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ হবে না বলে তিনি মনে করেন তাহলে নির্বাচন থেকে সরে আসার সিদ্ধান্ত নিবেন কিনা এই প্রশ্নের জবাবে মোকাব্বির খান বলেন আমি নির্বাচনে এসেছি দুটি কারণে প্রথমত গণতন্ত্র কে ফিরিয়ে আনার জন্য নির্বাচনে অংশগ্রহণ না করলে সেটি কোনভাবেই সম্ভব নয়।দ্বিতীয়ত সরকারের বিরুদ্ধে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করা একটি প্রতিবাদ।

আমি মনে করি বিগত পাঁচ বছরে জনগণ আমার কর্মকাণ্ড দেখেছে ফলে তারা জানে আমি কতটুকু সৎ এবং নিরপেক্ষ। এ কারণেই আওয়ামী লীগের প্রার্থী সহ সমর্থকেরা ভয় পেয়ে গেছে। তাই তারা যেকোন উপায়ে আমাকে প্রতিহত করতে চায়। এমনকি আমার অল্প কিছু পোস্টার ঝুলন্ত অবস্থায় টাঙ্গানো রয়েছে সেগুলো তারা বিভিন্ন জায়গায় ছিড়ে ফেলে দিচ্ছে।

এই ব্যাপারে মোকাব্বির খান কোন লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন আমি কোন লিখিত অভিযোগ দেইনি। কারণ আমি মনে করি লিখিত অভিযোগ দিয়ে কোন লাভ নেই। যেখানে প্রশাসন নিরপেক্ষ নয় সেখানে কার কাছে অভিযোগ দিব।

শেয়ার করুন